প্রয়াত বর্ষিয়ান কমরেড বিল্বমঙ্গল চ্যাটার্জী

Billamangal

গত ২৪ জুন নদীয়া জেলার পলাশীপাড়ার বর্ষিয়ান কমরেড বিল্বমঙ্গল চ্যাটার্জী প্রয়াত হয়েছেন। তাঁর বয়স হয়েছিল ৮৪ বছর। তিনি রেখে গেছেন তিন কন্যা ও একমাত্র পুত্র সন্তান সহ তাঁর গুণমুগ্ধ বহু কমরেড এবং বন্ধুজনদের। তাঁর স্ত্রী প্রয়াত হয়েছেন এক দশকেরও বেশি সময় আগে। কমরেডের মৃত্যুসংবাদ পেয়ে কমরেডরা তাঁর বাড়িতে যান, অন্তিম শ্রদ্ধা জানান, পরিবারের সদস্যদের কাছে সমবেদনা প্রকাশ করেন। পার্টির কেন্দ্রীয় ও রাজ্য নেতৃবৃন্দ শোকপ্রকাশ করেন। কমরেডের মরদেহ নিয়ে আসা হয় পার্টির নদীয়া জেলার প্রাণকেন্দ্র ধুবুলিয়া অফিসে, সেখানে পার্টি ও গণসংগঠনের জেলা নেতৃবৃন্দ অন্তিম শ্রদ্ধা ও বিদায় জানান। অবশেষে তাঁর শেষকৃত্য সম্পন্ন হয় যথাযোগ্য মর্যাদার সাথে।

কমরেড বিল্বমঙ্গল চ্যাটার্জী নকশালবাড়ি বিপ্লবী জনজাগরণের সময়কাল থেকে এই ধারায় আত্মনিয়োগ করেন। সিপিআই(এমএল) গঠন হলে তিনি পার্টিতে যোগ দেন। ১৯৭১ থেকে ৭৪ পর্যন্ত কারান্তরিত ছিলেন।

কমরেড সুবোধ মজুমদার কারাবাস থেকে বেরিয়ে আসার পর তাঁর সাথে মিলে কমরেড বিল্বমঙ্গল চ্যাটার্জী পুনরায় জেলায়, বিশেষ করে পলাশীপাড়া অঞ্চলে পার্টি এবং গণরাজনৈতিক সংগঠনকে শক্তিশালী করতে হাত লাগান। সেই থেকে মৃত্যুর আগে পর্যন্ত তিনি পার্টির ক্লান্তিহীন কমরেড হিসেবে কাজ করে এসেছেন। সব কাজে হাসিমুখের অমায়িক ব্যবহারের জন্য তিনি সবার খুব কাছের ছিলেন।

কমরেড বিল্বমঙ্গল চ্যাটার্জী লাল সেলাম।

খণ্ড-26
সংখ্যা-18
27-06-2019